শিক্ষার্থীদের অভিযোগ সরকার সহানুভুতির সাথে বিবেচনা করেছে: ঢাকা রেঞ্জের ডিআইজি চৌধুরী আব্দুল্লাহ আল মামুন

ঢাকা রেঞ্জের ডিআইজি চৌধুরী আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেছেন, কিছুদিন শিক্ষার্থীদের আন্দেলনের কারণেই হোক বা আমাদের চেকিংয়ের কারণেই হোক এখন কিছু গাড়ি যাদের কাগজপত্র নেই তারা রাস্তায় বের হচ্ছে না।  যাদের কাগজপত্র আছে তারাই শুধু এখন রাস্তায় বের হচ্ছে। এর মাঝেও আমরা তাদের ত্রুটি-বিচ্যুতি পাচ্ছি তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিচ্ছি। আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা দায়িত্বশীল পরিচয় দিয়ে সরকারের ডাকে সারা দিয়েছে। শিক্ষার্থীদের যে অভিযোগ ছিল সরকার তা সহানুভুতির সাথে বিবেচনা করেছে।শিক্ষার্থীরা শ্রেণী কক্ষে ফিরে যাবে এবং অন্যান্য যে কার্যক্রম আইগতভাবে যেটা চলার সেটা আইগতভাবেই চলবে।

ডিআইজি আরো বলেন, কাগজপত্র ত্রুটি থাকায় জেলা ট্রাফিক বিভাগের উদ্যোগে রবিবার ৩৮৪ টি যানবাহনের বিরুদ্ধে মামলা দেয়া হয়েছে। এর মধ্যে ১৮৪ জন চালকের বিরুদ্ধে বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে।

পুলিশের ট্রাফিক সপ্তাহ উপলক্ষে সোমবার (৬আগষ্ট) দুপুরে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে সিদ্ধিরগঞ্জের কয়েকটি চেক পোষ্ট পরিদর্শনকালে তিনি এসব কথা বলেন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন, নারায়ণগঞ্জ জেলার পুলিশ সুপার মঈনুল হক, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) মনিরুল ইসলাম, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ডিএসবি) ফারুক হোসেন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ডিবি) নূরে আলম, সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার (ট্রাফিক) আব্দুর রশিদ, ফতুল্লা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) মঞ্জুর কাদের, সিদ্ধিরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি)  আব্দুস সাত্তার মিয়া, সিদ্ধিরগঞ্জ থানার পরিদর্শক (অপারেশন) আজিজুল হক, জেলা ট্রাফিক পুলিশের পরিদর্শক (প্রশাসন) মোল্যা তাসলিম হোসেন, টিআই আব্দুল কাদের মোল্লা, টিআই মোঃ শরিফ-উল-ইসলাম, টিআই জিয়াউল করিম ও নারায়ণগঞ্জ সার্কেল বিআরটিএ’র মোটরযান পরিদর্শক নুরুল হোসেনসহ স্কাউট সদস্যরা।

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

%d bloggers like this: