চুন্নু ভিতরে থাকলেও বাহিরে প্রেতাত্না মিথুন!!


ফতুল্লা(নিউজ বন্দর ২৪) : নারারয়ণগঞ্জ সদর উপজেলার ফতুল্লা কুতুবপুর লামাপাড়া নয়ামাটি এলাকার দুই চিহিৃত অপরাধীর একজন মোফাজ্জল হোসেন চুন্নু মাদক ও অস্ত্রসহ ফতুল্লা থানা পুলিশের হাতে গ্রেফতার হলেও এখনও প্রকাশ্যে ঘুরে বেড়াচ্ছেন তার অপর সঙ্গী আবদুর রশিদ মিথুন। মিথুনের নামে থানায় একাধিক মামলা থাকলেও সিদ্ধিরগঞ্জের আরামবাগ এলাকার ছাত্রলীগ নেতা নামধারী আমির হোসেনের সার্বিক সহযোগিতায় মাঠ দাবড়িয়ে বেড়াচ্ছে র‌্যাব ও পুলিশের তালিকাভুক্ত আসামী মিথুন।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক লামাপাড়া এলাকার অনেকেই জানান,আবদুর রশিদ মিথুন ও চুন্নু একটি ডালে দুটি পাখি হিসেবেই সুপরিচিত। ইতিপুর্বে র‌্যাব ও পুলিশের হাতে একাধিকবার ইয়াবা ও অস্ত্রসহ আটক হলেও আমির হোসেনের সহযোগিতায় আইনীভাবে দ্রুত বের হয়ে পড়ে। পুলিশের মাত্রাতিরিক্ত অভিযান হলে মিথুন আরামবাগে আমিরের নিজ বাসভবনে গিয়ে আশ্রয় নেয়। গত কয়েকবার আগেও মিথুন আরামবাগে আমিরের বাড়িতে অবস্থান করেছিলো এবং আমির হোসেন মিথুনের ব্যবহৃত কালো রংয়ের একটি জিপ গাড়িতে দিব্যি ঘুরে বেড়াতো। যে গাড়িটি নিয়ে মাদকসহ শিবু মার্কেট এলাকায় র‌্যাবের হাতে গ্রেফতার হয়েছিলো মিথুন। তাদের দাবী উক্ত এলাকাতে মিথুন ও চুন্ন এক মায়ের পেটে দুইভাই হিসেবে বিভিন্ন অপরাধের রামরাজ্যে চালাতো। চুন্নু পুলিশের হাতে গ্রেফতার হলেও এখনও পর্যন্ত মিথুনের মত প্রায় ডজনখানেক মামলার আসামী কিভাবে প্রকাশ্যে ঘুরে বেড়াচ্ছে তা আমাদের কারোর বোধগম্য হচ্ছেনা।

লামাপাড়া নয়ামাটি এলাকার স্থানীয়রা বর্তমান এসপি মো.হারুনুর রশিদের সার্বিক সহযোগিতা কামনা করছেন চুন্নু সঙ্গী মিথুনসহ অন্যান্যদেরকে দ্রুত গ্রেফতারের।

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

%d bloggers like this: