বাচঁতে চায় শিশু সুজন,সকলের সহযোগিতা কামনা

ফতুল্লা(নিউজ বন্দর ২৪) :  দু’চোখের কোণা বেয়ে টপ টপ করে পানি পড়ছে ৯ বছর বয়সের মোঃ সুজনের। অঝোরে কাঁদছে আর বলছে আমি বড় হতে চাই। খেলতে চাই, পড়ালেখা করে দেশের কল্যাণে কাজ করতে চাই। আপনারা আমাকে বাচান। আমি বাঁচতে চাই। মাদ্রাসায় যেতে চাই। আমি খুব কষ্টে আছি। সারাদিন শরীর ও মাথা খুব ব্যাথা করে। বুক ধড়পড় করে, নিশ্বাস বন্ধ হয়ে আসতে চায় আমি খুব কষ্টে আছি।
সুজনের বাড়ী বি:বাড়িয়া জেলার নাসির নগর থানাধীন জেটাগ্রামে। বর্তমানে তার পরিবারের সবাই নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার ফতুল্লা থানাধীন পাগলা নাককাটার বাড়ী সংলগ্ন শাহাদাত মিয়ার বাড়ী (জয় ভবন) ভাড়াটিয়া হিসেবে বসবাস করেন। সে মুঞ্জু মিয়া ও মমেনা বেগম দম্পতির দ্বিতীয় ছেলে। জন্মের পর থেকেই হার্টের রোগে আক্রান্ত।
সুজনের দিনমজুর দরিদ্র পিতা ছেলের চিকিৎসা করাতে গিয়ে নিজের সর্বস্ব হারিয়েছেন।এমনকি বসতবাড়ী জমিও বিক্রি করে ঢাকা সরোয়ার্দী হাসপাতালসহ বিভিন্ন ভাবে ছেলের চিকিৎসায় ব্যয় করেছেন।
সুজনের পিতা মুঞ্জু মিয়া জানান, আমার ২ ছেলে ও ১ মেয়ে নিয়ে সুখের সংসার ছিল। হঠাৎ করে ছেলেটার হার্টের রোগ দেখা দিলো। ছেলের চিকিৎসার পিছনে জমি বাড়ীসহ প্রায় অনেক টাকা খরচ করেছি। আমি এখন আর পারছিনা । দিনমজুর কাজ করে কোন মতে জীবন যাপন করছি। এখন কিভাবে সুজনের চিকিৎসা করাবো বুঝে উঠতে পারছিনা। প্রতি মাসে ডাক্তার বিল দিতে হয়। ঔষধ – পত্রতো আছে। ডাক্তার বলেছে অপারেশন করাতে হবে। এজন্য ৩/৪ লক্ষ টাকার প্রয়োজন। যা আমার পক্ষে সংগ্রহ করা সম্ভব নয়। এজন্য দেশের প্রধানমন্ত্রী, রাষ্ট্রপতি ও রাজনীতিবীদ, সমাজের বিশিষ্ট শিল্পপতিসহ দেশবাসীর নিকট সাহায্যের আবেদন করছি। আপনারা সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিলে ৯ বছরের একটা শিশু তার জীবন নতুন রুপে ফিরে পাবে।
সুজনের সাহায্য পাঠানোর ঠিকানা:
টহরঃবফ ঈড়সসবৎপরধষ ইধহশ খরসরঃবফ. চধমষধনধুধৎ ইৎধহপয. ঘধসব: গফ.গধহলঁ গরধয. অপপড়ঁহঃ ঘড়:- ০৫৫ ৩২০১ ০০০০০৮৪৮০
মোবাইলে যোগাযোগ:-০১৭৩৫৫০৩২৬৫ ( সুজনের বড় ভাই সুমন) ০১৮৬৪৩৮৩২১৯ ( সুজনের পিতা মুঞ্জু মিয়া)

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

%d bloggers like this: